• শনিবার ৮ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ২৫শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

    শিরোনাম

    যেসব কারণে বিশেষ সম্পর্কে আগ্রহ হারায় দম্পতিরা

    অনলাইন ডেস্ক | ০৬ অক্টোবর ২০২০ | ১০:০৬ পূর্বাহ্ণ

    যেসব কারণে বিশেষ সম্পর্কে আগ্রহ হারায় দম্পতিরা

    সম্পর্ক শুরুর পর্যায়ে একে অন্যের প্রতি যতটা আগ্রহ থাকে, ধীরে ধীরে অনেকেরই সেই আগ্রহ হারিয়ে যায়। এমনকি শারীরিক সম্পর্কে জড়ানোর ব্যাপারেও ধীরে ধীরে বহু দম্পতির আগ্রহ কমে যায়। অনেকে তো একেবারেই শারীরিক সম্পর্ক স্থাপন বন্ধ করে দেয়।

    দম্পতিদের মধ্যে ঠিক কী কারণে মিলনের আগ্রহ হারিয়ে যায়, তা খুঁজে বের করেছেন গবেষকরা। মনোরোগ বিশেষজ্ঞরা মোট ৭৮টি কারণ চিহ্নিত করেছেন।

    সেই তালিকায় সবার উপরে রয়েছে, একে অন্যকে উৎসাহিত করার প্রবণতা হারিয়ে যাওয়া। মনোরোগ বিশেষজ্ঞরা মনে করেন, দম্পতিরা যখন একে অন্যকে উৎসাহিত করতে পারে না, তখন সুন্দর সম্পর্কের মৃত্যু ঘটে।

    এর পরেই রয়েছে সময় দেওয়া বা পরিচর্যার অভাব। আলো-বাতাস, পরিচর্যার অভাবে তরতাজা গাছও যেমন নেতিয়ে পড়তে পারে, তেমনি সম্পর্কেও পরিচর্যার দরকার পড়ে। একে অন্যের ব্যাপারে দীর্ঘদিনের অবহেলার ফলে বিশেষ সম্পর্ক নিয়ে আর কারো মধ্যেই আগ্রহ থাকে না।

    দম্পতির একজন যদি প্রতারণা করেন, তাহলেও এ সমস্যা তৈরি হয়। স্বামী বা স্ত্রী পরকীরার সম্পর্কে জড়ালে সঙ্গীর প্রতি উদাসীন হয়ে যায়।

    স্বামী বা স্ত্রী যদি স্বার্থপর হয়, সে ক্ষেত্রেও শারীরিক সম্পর্কের আগ্রহ কমে যায়। এজন্য একে অন্যের প্রতি যত্ন নেওয়া, উভয়ে উভয়ের পছন্দ-অপছন্দের বিষয়গুলো খেয়ালে রাখা দরকার।

    এক জরিপে অংশ নেওয়া এক হাজার ৯৯ জনের মধ্যে ৪৩ শতাংশ বলেছে, তাদের শারীরিক সম্পর্কের হার ৩৫ বছর বয়সে গিয়ে কমে গেছে। তবে যাদের মধ্যে বোঝাপড়া ভালো, শারীরিক সম্পর্ক তাদেরই স্বাভাবিক চলছে।

    সূত্র : ডেইলি মেইল

    Facebook Comments

    বাংলাদেশ সময়: ১০:০৬ পূর্বাহ্ণ | মঙ্গলবার, ০৬ অক্টোবর ২০২০

    shikkhasangbad24.com |

    advertisement

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    advertisement
    শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
    ১০১১১২১৩১৪
    ১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
    ২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
    ২৯৩০৩১ 
    advertisement

    সম্পাদক ও প্রকাশক : জাকির হোসেন রিয়াজ

    সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: বাড়ি# ১, রোড# ৫, সেক্টর# ৬, উত্তরা, ঢাকা

    ©- 2021 shikkhasangbad24.com all right reserved